top of page

*#গম্ভীরালীলায়_মহাপ্রভু *(#পর্ব_১৮,চলবে)*


*#গম্ভীরালীলায়_মহাপ্রভু*


*(#পর্ব_১৮)*

#নীলাচলে_যাবার পূর্বেই মহাপ্রভু শ্রীরাধার ভাবে ব্রজরস সুধামাধুরী আস্বাদন করেছিলেন, তা শ্রীচৈতন্যভাগবত ও শ্রীচৈতন্যচরিতামৃত গ্রন্থ অধ্যয়ন করলেই বুঝা যায় ৷

#সেই_ভাবই_এক_কলা_দুই কলা বর্দ্ধিত হতে হতে নীলাচলে গম্ভীরা লীলায় #ষোল_কলায় পরিপূর্ণ হয়েছিল ৷

#শান্তিপুরের_পর

নীলাচলে দীর্ঘ বারো বৎসর ব্যাপী গম্ভীরা লীলার প্রারম্ভে মহাপ্রভু কীভাবে লীলায়িত থাকতেন—

#মহাপ্রভু_প্রতিদিন_অতি

প্রত্যুষে গাত্রোত্থান করে প্রাতঃকৃত্য সমাপন করে শ্রীজগন্নাথ মন্দিরে যেতেন, মঙ্গলারতি দর্শন করতে ৷ তারপর শীত-গ্রীষ্ম-বর্ষা-বাধাবিঘ্ন

উপেক্ষা করে প্রিয়ভক্ত হরিদাস মিলনে সিদ্ধ বকুল তলায় যেতেন ৷ সেখানে প্রতিদিন কৃষ্ণকথা ও কৃষ্ণনামসংকীর্তন চলত নানারঙ্গে ও মহানন্দে ৷

#প্রতিদিন_শ্রীজগন্নাথের

মঙ্গল আরতিকালে মহাপ্রভু শ্রীজগন্নাথ দর্শনের মাধ্যমে শ্রীকৃষ্ণের যে অপূর্ব রূপমাধুরী অবলোকন করতেন, তাতে প্রেমবিহ্বল অবস্থায় মহাপ্রভুর মুখমণ্ডল বিদ্যুন্মালার মত ঝলমল করে উঠত। সেই অবস্থায় তিনি পরম আবেগে হরিদাসের নিকট ছুটে এসে তাঁকে দর্শন করতেন,তার ফলে স্বচ্ছদর্পণ সদৃশ হরিদাসের চোখে মুখে মহাপ্রভুর মুখমণ্ডলের অবিকল প্রতিচ্ছায়া প্রতিবিম্বিত হয়ে উঠত ৷ সেই প্রতিবিম্ব দর্শন করে মহাপ্রভু পরমতৃপ্তি লাভ করতেন ৷

#এই_ভক্তসুখ_মাধুর্য পানের মাধ্যমে নিজমুখ দর্শনের দুর্দমনীয় লোভেই মহাপ্রভু প্রতিদিন হরিদাসের কাছে ছুটে আসতেন এবং তাতে আনন্দ উপভোগও করতেন ৷

#শ্রীহরিদাস_মহাপ্রভুর এমনই এক প্রেমময় অন্তরঙ্গ ভক্ত ছিলেন যে , তিনি মহাপ্রভুর মনের খবর সমস্তই হৃদয়ঙ্গম করতে পারতেন ৷ তাই মহাপ্রভুকে

আনন্দ দিতে মহাপ্রভুর মনে যখন #ব্রজভাবের_উদয় হত, হরিদাস তদ্ভাবোচিত শ্রীকৃষ্ণের কথা মহাপ্রভুকে শুনাতেন—


"#মধুরং_মধুরং_বপুরস্য_বিভো র্মধুরং মধুরং বদনং মধুরম্ ৷

মধুগন্ধি মৃদুস্মিতমেতদহো মধুরং মধুরং মধুরং মধুরম্ ॥(কর্ণামৃত)

#অহো ! এই বিভু শ্রীকৃষ্ণের দেহখানি মধুর , অতি মধুর , তাঁর বদন মধুর , মধুরাতিমধুর, অতিসুমধুর ; তাঁর মধুগন্ধি মন্দহাসি তার চেয়েও মধুর , সুমধুর-মধুরতম ॥

#শ্রীকৃষ্ণের_অঙ্গের মাধুর্য , মুখের মাধুর্য ও মন্দহাস্যের মাধুর্য-এই তিন মাধুর্য আস্বাদনের লোভেই মহাপ্রভু সর্ববিধ বাধা বিঘ্ন উপেক্ষা করে উন্মত্তের মত হরিদাসের কাছে ছুটে আসতেন ৷

(#জয়_মহাপ্রভু)

0 views0 comments

Comments


Be Inspired
bottom of page